Connect with us

গান বাজনা

ঈদ নাটকে ইমন সাহার সুর-সংগীতে অয়ন-আনিসার গান

সিনেমাওয়ালা রিপোর্টার

Published

on

(বাঁ থেকে) ইমন সাহা, আতিয়া আনিসা ও অয়ন চাকলাদার (ছবি: ফেসবুক)

সুরকার ও সংগীত পরিচালক ইমন সাহা সাধারণত সিনেমার গান তৈরি করে থাকেন। একসময় নিয়মিত ছোট পর্দার নাটকের আবহ সংগীত সাজাতেন তিনি। অনেক বছর পর নাটকের গান সুর করেছেন ইমন সাহা। তারই সংগীতায়োজনে এতে কণ্ঠ দিয়েছেন অয়ন চাকলাদার ও আতিয়া আনিসা। ‘ঈদ ভ্যাকেশন’ নামের একটি নাটকের জন্য তৈরি হয়েছে এই গান।

নাটকের গান প্রসঙ্গে ইমন সাহা বলেন, “যতটা মনে পড়ে, ‌সর্বশেষ ‘বকুলপুর’ নাটকের টাইটেল গান তৈরি করেছিলাম। এতে কণ্ঠ দিয়েছিলো কোনাল। তাও ৮-১০ বছর তো হবেই। এরপর আর নাটকের জন্য কাজ করা হয়নি। মুহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজ প্রতিষ্ঠিত একজন নির্মাতা। তার ‘ঈদ ভ্যাকেশন’ নাটকের জন্য গান সুর করে ভালো লাগলো। গানের কথাগুলো খুব সুন্দর। অয়ন ও আনিসা দারুণ গেয়েছে। শ্রোতাদের ভালো লাগলে আমরা সবাই খুশি হবো।”

ইমন সাহা (ছবি: ফেসবুক)

এর আগে বদরুল আনাম সৌদ পরিচালিত ‘শ্যামা কাব্য’ সিনেমায় ইমন সাহার সুর-সংগীতে একটি গান গেয়েছেন অয়ন ও আনিসা। নাটকের জন্য এই ত্রয়ী এবারই প্রথম একসঙ্গে কাজ করলেন।

আতিয়া আনিসা (ছবি: ফেসবুক)

নতুন গানটির কথা লিখেছেন জনি হক। ‘পরাণ’ সিনেমায় তার লেখা ‘চলো নিরালায়’ গান গেয়ে তুমুল জনপ্রিয়তা পান অয়ন ও আনিসা। ‘ঈদ ভ্যাকেশন’ নাটকের মাধ্যমে আবার তারা একই গানে কাজ করলেন।

অয়ন চাকলাদার (ছবি: ফেসবুক)

‘ঈদ ভ্যাকেশন’ নাটকটি লিখেছেন ও পরিচালনা করেছেন মুহাম্মদ মোস্তফা কামাল রাজ। এতে অভিনয় করেছেন খায়রুল বাসার ও কেয়া পায়েল। ঈদুল আজহা উপলক্ষে ইউটিউবে সিনেমাওয়ালা চ্যানেলে আসবে নাটকটি।

গান বাজনা

‘রূপবান’ মিলার নতুন আইটেম গান ‘টোনা টুনি’

সিনেমাওয়ালা রিপোর্টার

Published

on

মিলা ইসলাম (ছবি: জি-সিরিজ)

পপ গায়িকা মিলা ইসলাম চমক নিয়ে ফিরছেন। ঈদুল আজহা উপলক্ষে নতুন একটি গান আনছেন তিনি। এর শিরোনাম ‘টোনা টুনি’। গায়িকা নিজেই এই গান লিখেছেন এবং সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন। আইটেম গানের উপযোগী করে সাজানো হয়েছে এটি।

‘টোনা টুনি’র ভিডিওতে নেচেছেন মিলা। তার সঙ্গে মডেল হয়েছেন মারুফ চৌধুরী অমি। এটি নির্মাণ করেছেন ইলজার ইসলাম। ইউটিউবে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জি-সিরিজের চ্যানেলে আগামীকাল (১৫ জুন) সন্ধ্যা ৭টায় মিউজিক ভিডিওটি মুক্তি পাচ্ছে।

নতুন গান নিয়ে আশাবাদী মিলা। এতে তার জনপ্রিয় গান ‘রূপবান’-এর আবহ পাওয়া যাবে। তিনি বলেন, “শ্রোতাদের প্রিয় ‘রূপবান’ গানের পর আর কখনো আমাকে আইটেম গানে দেখা যায়নি। তবে ভক্তদের চাওয়া ছিলো এমন কাজ যেন আবার করি। কিন্তু মনের মতো গান পাচ্ছিলাম না। শেষ পর্যন্ত নিজেই গানের কথা লিখে সুর ও সংগীতায়োজন করেছি।”

মিলা যোগ করেন, “ভক্তদের প্রত্যাশা পূরণ করতে ‘টোনা টুনি’ গানে হাজির হচ্ছি। তবে এমন আইটেম গান আর কখনো করবো না। এটাই আমার দ্বিতীয় ও শেষ আইটেম গান। দুই বছর ধরে এটি তৈরি করেছি। শ্রোতা-দর্শকদের কাছে একটি চমক নিয়ে ফিরতে চেয়েছি। ‘টোনা টুনি’ গানের কথাগুলো একেবারে আলাদা। আমি ড্যান্সার না তারপরও এই গানের জন্য নাচ করতে হয়েছে। নিজের সেরাটা দিয়ে ভালো করার চেষ্টা করেছি। এতটুকু বলতে পারি বিভিন্ন উৎসব মাতানোর মতো একটি গান হয়েছে। গানটি দিয়ে মঞ্চ মাতানোর অপেক্ষায় আছি। এখন দর্শক-শ্রোতাদের প্রতিক্রিয়া জানার অপেক্ষায় আছি।’

‘টোনা টুনি’র পোস্টারে মিলা ইসলাম (ছবি: জি-সিরিজ)

মাঝে নতুন গানের অনেক প্রস্তাব পেলেও ‘টোনা টুনি’র কথা ভেবে অপেক্ষায় ছিলেন মিলা। গানের টিজার প্রকাশের পর ভক্তদের আগ্রহ দেখে তার প্রত্যাশা বেড়েছে।

মিলা জানিয়েছেন, টিকটকে ‘টোনা টুনি’ নিয়ে সবচেয়ে বেশি ভিউ হবে যাদের এবং যারা ভালো নাচবেন, এমন ১০ জনের সঙ্গে তিনি গানটির তালে পারফর্ম করবেন।

জি-সিরিজ থেকে নতুন গান আনা প্রসঙ্গে মিলা বলেন, ‘অডিও-ভিডিও প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটির স্বত্বাধিকারী নাজমুল হক ভূঁইয়া খালেদ আমাকে মেয়ের মতো স্নেহ করেন। তিনি আমার সুখে-দুখে সবসময় পাশে ছিলেন। আমিও ক্যারিয়ারের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত গানের কথা ভাবলে জি-সিরিজের নাম আগে মাথায় আসে। তাদের সঙ্গে আমার সম্পর্ক দারুণ। বলা যায় জি-সিরিজ আমার নিজের ঘর। সেজন্য তাদের মাধ্যমেই নতুন গান প্রকাশ করছি।’

‘টোনা টুনি’র পোস্টারে মিলা ইসলাম (ছবি: জি-সিরিজ)

সর্বশেষ তিন বছর আগে জি-সিরিজের ‘আইসালা’ শিরোনামের একটি মিউজিক ভিডিওতে দেখা গেছে মিলাকে। এরপর কাজ কমিয়ে দিয়েছিলেন তিনি। বর্তমানে মঞ্চে সংগীত পরিবেশন নিয়ে ব্যস্ত সময় কাটছে তার।

আর বিরতি নয়, মিলা এখন থেকে গানে নিয়মিত হবেন। পাশাপাশি আরো বেশি সরব থাকবেন মঞ্চে। তার কথায়, ‘বিভিন্ন কারণে মাঝে কিছু সময় নষ্ট হয়েছে। আর যেন এমন না হয় সেদিকে সজাগ থাকবো। মঞ্চে সংগীত পরিবেশনার ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে। এছাড়া নতুন গানের কাজ করছি। চলতি বছর শ্রোতাদের আরো কয়েকটি গান উপহার দিতে চাই।’

পড়া চালিয়ে যান

গান বাজনা

গান গাইলেন নাচের জুটি শিবলী-নীপা

সিনেমাওয়ালা রিপোর্টার

Published

on

‘বৃত্তের বাইরে’ অনুষ্ঠানে শিবলী মোহাম্মদ ও শামীম আরা নীপা (ছবি: বিটিভি)

নৃত্যজুটি শিবলী মোহাম্মদ ও শামীম আরা নীপাকে নতুনভাবে পাবেন দর্শক-শ্রোতারা। তারা একটি দ্বৈত গান গেয়েছেন। এর ভিডিওতে তারাই মডেল হয়েছেন। বাংলাদেশ টেলিভিশনের (বিটিভি) ‘বৃত্তের বাইরে’ অনুষ্ঠানে থাকছে এটি। সম্প্রতি এই আয়োজনের শুটিং হয়েছে।

বিভিন্ন পেশায় প্রতিষ্ঠিত দেশের স্বনামধন্য ব্যক্তিদের অংশগ্রহণ থাকছে ‘বৃত্তের বাইরে’তে। অনুষ্ঠানে তারা স্ব স্ব পেশার বাইরে পছন্দের বিষয় পরিবেশন করেছেন।

‘বৃত্তের বাইরে’ অনুষ্ঠানে শামীম আরা নীপা ও শিবলী মোহাম্মদ (ছবি: বিটিভি)

শিবলী-নীপা ছাড়াও পুলিশের ডিআইজি মো. আসাদুজ্জামান একটি আধুনিক গান গেয়েছেন। গাইনি চিকিৎসক প্রমা জেড মজুমদার বাঁশি বাজিয়েছেন। শুটার তাসমায়াতি এমা নৃত্য পরিবেশন করেছেন।

‘বৃত্তের বাইরে’ অনুষ্ঠানে শিবলী মোহাম্মদ ও শামীম আরা নীপা (ছবি: বিটিভি)

‘বৃত্তের বাইরে’ উপস্থাপনা করেছেন নারী ফুটবল দলের সাবেক কোচ ডালিয়া আক্তার। বর্তমানে তিনি পুরুষ হ্যান্ডবল দলের কোচ।

বিটিভিতে ঈদের তৃতীয় দিন সকাল ১১টায় প্রচার হবে ‘বৃত্তের বাইরে’। প্রযোজনায় এল রুমা আকতার।

পড়া চালিয়ে যান

গান বাজনা

মাশা ইসলামের কণ্ঠে শচীন দেব বর্মণের ‘রঙ্গিলা’

সিনেমাওয়ালা রিপোর্টার

Published

on

মাশা ইসলাম (ছবি: ফেসবুক)

কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী শচীন দেব বর্মণের কালজয়ী গান ‘রঙ্গিলা’ নতুন আঙ্গিকে তৈরি হলো। চিরকুট ব্যান্ডের সদস্য পাভেল আরীনের সংগীতায়োজনে এটি গেয়েছেন নতুন প্রজন্মের গায়িকা মাশা ইসলাম। লিভিং রুম সেশনের ইউটিউব চ্যানেলে গতকাল (৬ জুন) সন্ধ্যায় উন্মুক্ত হয়েছে এই গান।

সংগীতশিল্পী পাভেল আরিনের গানের প্রকল্প লিভিং রুম সেশন। ‘রঙ্গিলা’ গানটি বাছাই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘ছোটবেলায় নানি বাড়ি যেতে খেয়া পার হতে হতো। তখন একজন খেয়া মাঝির মুখে এই গান প্রথম শুনেছিলাম। সেই থেকে এটি গেঁথে যায় আমার মনে। পরবর্তী সময়ে জানতে পারি এই গান শচীন দেব বর্মণের অসামান্য সৃষ্টি।’

‘রঙ্গিলা’ গানে পাভেল আরীন ও মাশা ইসলাম (ছবি: মাশরুম এন্টারটেইনমেন্ট)

নতুন সংগীতায়োজনে গানটি সাজানো প্রসঙ্গে পাভেল আরীন যোগ করেন, “গানের বাণী ও গায়কীকে প্রাধান্য দেওয়ার চেষ্টা করেছি। মাশা ইসলাম যত্ন নিয়ে গানটির কাজ করেছেন। নতুন সাউন্ডে ‘রঙ্গিলা’ শুনতে শ্রোতাদের ভালো লাগবে আশা করি।”

মাশা ইসলাম (ছবি: ফেসবুক)

পাভেল আরীনের সংগীতায়োজনে লিভিং রুম সেশনে এর আগে প্রকাশিত হয় রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, কাজী নজরুল ইসলাম, সাধক জালাল খাঁ, সতীশচন্দ্র গোঁসাই, হাসান মতিউর রহমান ও গীতিকবি মোয়াজ্জেম হোসেনের কথায় আলেয়া বেগমের একটি গান। এগুলোর গায়কিতে দেশীয় সংগীতাঙ্গনের প্রখ্যাত ও নবীন শিল্পীদের সমন্বয় দেখা গেছে। গানগুলো গেয়েছেন মুজিব পরদেশী, দিলশাদ নাহার কনা, ইমরান মাহমুদুল, কাজল দেওয়ান, জাহিদ নীরব ও ইন্নিমা।

লিভিং রুম সেশনের অডিও প্রোডাকশন করেছে বাটার কমিউনিকেশন। ভিডিও নির্মাণে মারুফ রায়হান। পরিবেশনায় মাশরুম এন্টারটেইনমেন্ট।

পড়া চালিয়ে যান
Advertisement

সিনেমাওয়ালা প্রচ্ছদ